‘বাংলাদেশ ও ভারতে অপরাধ দমনে সহযোগিতা বাড়ছে’

‘বাংলাদেশ ও ভারতে অপরাধ দমনে সহযোগিতা বাড়ছে’

ডেস্ক রিপোর্ট : অতিরিক্ত আইজিপি (প্রশাসন ও অপারেশনস্) মো. মোখলেসুর রহমান বলেছেন, বাংলাদেশ ও ভারত উভয় দেশের মধ্যে অপরাধ দমনসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে সহযোগিতা বাড়ছে। এর ফলে জঙ্গি দমন, জাল নোট রোধসহ আন্তঃদেশীয় অপরাধ দমন সহজ হয়েছে। গতকাল রোববার সকালে পুলিশ সদর দফতরে বাংলাদেশ ও ভারত জাল নোট সংক্রান্ত যৌথ টাস্কফোর্সের ৩ দিনব্যাপী ৪র্থ সভার উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে সার্বিক সহযোগিতা প্রদানের জন্য ভারত সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়ে এ সহযোগিতা বিদ্যমান থাকলে উভয় দেশ উপকৃত হবে এবং ভবিষ্যতেও নানা ধরনের অপরাধ মোকাবিলা ও বিভিন্ন বিষয়ে আগাম পদক্ষেপ নেওয়া সহজতর হবে।

সভায় বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন ডিআইজি (ক্রাইম ম্যানেজমেন্ট) রৌশন আরা বেগম। ভারতীয় প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে ছিলেন এনআইএ’র আইজি অনিল শুক্লা। সভায় উভয় দেশের ২৬ জন কর্মকর্তা অংশগ্রহণ করেন।

সভায় জাল নোটের উৎস চিহ্নিত করা এবং জাল নোট তৈরি ও বিতরণকারীদের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার জন্য উভয় দেশের প্রতিনিধিরা সম্মত হন। এক্ষেত্রে উভয় দেশের অফিসারদের মধ্যে প্রশিক্ষণ, কাজের অভিজ্ঞতা এবং তাৎক্ষণিক গোয়েন্দা তথ্য বিনিময়ের সিদ্ধান্ত হয়েছে।

ভারতীয় প্রতিনিধি দলের প্রধান এনআইএ’র আইজি অনিল শুক্লা বলেন, উভয় দেশের অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা বজায় রাখার জন্য অপরাধ দমনে আমরা যৌথভাবে কাজ করবো। এতে জাল নোট বন্ধসহ অনেক অপরাধ দমন করা সহজ হবে।

এর আগে ভারতীয় প্রতিনিধি দলের সদস্যরা আইজিপি এ কে এম শহীদুল হক এর সঙ্গে তার অফিস কক্ষে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন। এসময় তারা বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে জাল নোট বন্ধের বিভিন্ন দিক নিয়ে মতবিনিময় করেন।