রাঙামাটিতে তীব্র শীতে বিপর্যস্ত জনজীবন

রাঙামাটিতে তীব্র শীতে বিপর্যস্ত জনজীবন

রাঙামাটি জেলা প্রতিনিধি : তীব্র শীতে অতীষ্ট হয়ে উঠেছে রাঙামাটির জনজীবণ। টানা এক সপ্তাহ ধরে শৈত্য প্রবাহের কারণে সূর্য্যরে দেখা মিলছেনা বললে চলে। দিনের বেলা ভরদুপুরে কয়েক মিনিটের জন্য সুর্য একটু উকি দিলেও শীতের তীব্রতা কমছেনা। কর্মস্থলে যেতে সমস্যা হচ্ছে কর্মজীবিদের। নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের জন্য বাইরে বেরোনো কষ্টসাধ্য হয়ে উঠেছে। রাতের কুয়াশা যেন মুলধারের বৃষ্টি। বিপর্যস্ত হয়ে উঠেছে স্বাভাবিক চলাফেরা। রাঙামাটি শহরের এযাবৎকালের তীব্র শীতের রেকর্ড সৃষ্টি করেছে প্রকৃতি। রাঙামাটিতে এবার সর্বনিন্ম তাপমাত্র ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে আসে। শীতের এই তীব্রতায় বেশী কষ্ট পাচ্ছে শিশু, বয়োবৃদ্ধ ও অস্বচ্ছল পরিবারের লোকজন। শীত নিবারন বা শীতের প্রকট থেকে নিজেকে রক্ষা করতে বেশীরভাগ লোকজন আগুন জালিয়ে উত্তাপ নিচ্ছে। আবার অনেকে ভীড় জমিয়েছেন রাস্তার পাশে ভ্রাম্যমান শীত কাপড়ের স্তুপে। শীতের তীব্রতা বাড়ায় এসব ভ্রাম্যমান হকারদের ব্যবসাও জমছে ভাল। শীতে মুহ্যমান মানুষ এসব ভ্রাম্যমান থেকে কিনছেন কোনটি ৫শ, কোনটি ২শ, ৩শ যার কাছে যা পাওয়া যায়।

অন্যদিকে মরার উপর খাড়ার ঘা, কাপ্তাই হ্রদের পানি না কমায় এ মৌসুমের বোরো চাষ অনিশ্চিত হয়ে পরেছে। ফলে অধিকাংশ কৃষক হাড় কাপানো শীত উপেক্ষা করে কোমড়জলে কাঁদায় নেমে ধান রোপন করে চেষ্টা করছেন পুরো বছরের অন্ন সংস্থানের। এমন চলতে থাকলে শীতের দুর্ভোগ শেষ হতে না হতে খাদ্যাভাবের আশংকা করছেন বিজ্ঞমহল।