ক্যান্সারের গবেষণায় চিকিৎসার নোবেল পেলেন দুই বিজ্ঞানী

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : প্রাণঘাতী ক্যান্সারের চিকিৎসায় বৈপ্লবিক এক থেরাপি আবিষ্কারের ফলে চলতি বছরে চিকিৎসা বিজ্ঞানে যৌথভাবে নোবেল পুরস্কার পেয়েছে দুই বিজ্ঞানী। সোমবার মার্কিন ও জাপানি বংশোদ্ভূত দুই বিজ্ঞানীকে চিকিৎসা বিজ্ঞানে এ বছরের নোবেল পুরস্কার জয়ী হিসেবে ঘোষণা দেয়া হয়েছে।

স্টকহোমে ক্যারোলিনস্কা ইনস্টিটিউট এক ঘোষণায় বলছে, নোবেল জয়ী চিকিৎসা বিজ্ঞানী জেমস অ্যালিসন ও তাসুকু হনজু ৯০ লাখ সুইডিশ ক্রোনার ভাগাভাগি করে নেবেন। অ্যালিসন যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব টেক্সাস এমডি অ্যান্ডারসন ক্যান্সার সেন্টারের অধ্যাপক এবং হোনজো জাপানের কিয়োটো ইউনিভার্সিটির অধ্যাপক।

শরীরের ইমিউন সিস্টেম ক্যান্সার কোষে আক্রমণ ঠেকাতে ব্যবহার করা যেতে পারে। ক্যান্সারের চিকিৎসায় যুগান্তকরী এই আবিষ্কারের জন্য এ দুই বিজ্ঞানীকে চিকিৎসার নোবেল পুরস্কার দেয়া হয়েছে।

ইমিউন সিস্টেম শরীরের পরিবর্তিত কোষ খুঁজে বের করে সেগুলো ধ্বংস করে। কিন্তু ইমিউনের আক্রমণ থেকে লুকানোর চেষ্টা করে ক্যান্সার কোষ। এভাবে শরীরে ক্যান্সার কোষের বৃদ্ধি ও বিস্তার ঘটায়।

মঙ্গলবার পদার্থ, বুধবার রসায়ন, শুক্রবার শান্তি এবং আগামী ৮ অক্টোবর অর্থনীতিতে নোবেল বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হবে।

এর আগে, গত বছর চিকিৎসাশাস্ত্রে নোবেল পুরস্কার পান জেফরি সি হল, মাইকেল রসবাশ এবং মাইকেল ডব্লিউ ইয়ং। বায়োলজিকাল ক্লকস নিয়ন্ত্রণে মলিকিউলার মেকানিজম আবিষ্কারের স্বীকৃতি স্বরূপ তারা এই পুরস্কার পেয়েছেন। মানুষ, উদ্ভিদ এবং অন্যান্য প্রাণী কীভাবে বিভিন্ন অভ্যাসে অভ্যস্ত হয় সেবিষয়ে গবেষণায় উল্লেখযোগ্য অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ তাদের এই পুরস্কার দেয়া হয়।

১৯০১ সালের পর থেকে এখন পর্যন্ত চিকিৎসাশাস্ত্রে নোবেল পুরস্কার দেয়া হয়েছে ১০৮ বার। এর মধ্যে ১২ বার চিকিৎসার নোবেল পেয়েছেন নারীরা। এছাড়া মাত্র একজন করে বিজয়ী এই পুরস্কার জিতেছেন ৩৯ বার।

সূত্র : দ্য গার্ডিয়ান।

Categories: আন্তর্জাতিক,টপ নিউজ,প্রধান নিউজ

Tags: