পুরুষ নির্যাতন বিল দরকার’ ‘প্রধানমন্ত্রীকে বলেছিলাম

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫১তম সমাবর্তন ছিল গতকাল শনিবার। আর সেখানেই বক্তব্য রাখেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। তার বক্তব্য মানেই মজার কিছু তো থাকবেই, যা আনন্দ দেয় সবাইকে। বৈষয়িক প্রাপ্তির দিকে না ছুটে শিক্ষার্থীদের ন্যায় ও সত্যের পথে জীবন গড়ার আহ্বান জানান বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য্য রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘সংসদে প্রধানমন্ত্রী যখন নারী নির্যাতন বিল পাশ করেন তখন প্রধানমন্ত্রীকে বলেছিলাম, পুরুষ নির্যাতন বিল দরকার। প্রধানমন্ত্রী তখন বলেছিলেন, এই মুহূর্তে এটা দরকার নাই। পরে দেখা যাবে। ৬ বছর পার হয়েছে এখনো কিছু হয়নি। আসলে সারা বিশ্বের নির্যাতনের শিকার ভুক্তভোগী পুরুষরা এটা টের পাচ্ছে।’

এসময় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে আসলে মনটা সাময়িক সময়েরর জন্য হলেও চাঙ্গা হয় বলে মন্তব্য করেন রাষ্ট্রপতি।

রাষ্ট্রপতি বলিউডের অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়াকে নিয়ে কথা বলেন। তিনি বলেন, ‘কিছুদিন আগে প্রিয়াঙ্কা দেশে এসেছিল। বাংলাদেশে দেশের বাইরে থেকে যতো রাষ্ট্রপতি গণ্যমান্য ব্যক্তি আসেন তাদের সবাই শেষ দেখা করতে আসেন গণভবনে। প্রিয়াঙ্কা যেদিন আসবে তার আগের দিন আমার স্ত্রীকে বলেছিলাম এবার তো প্রিয়াঙ্কা চোপড়া আসবে।’

‘তারপর আর প্রিয়াঙ্কা আসলো না। পরে জানতে পারলাম, আমার স্ত্রী নাকি টেলিফোন করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে বলেছে, প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার আসার কী দরকার। তার আসার দরকার নাই।’

‘আমাদের এখান থেকে যাওয়ার কিছুদিন পরই জানতে পারলাম প্রিয়াঙ্কা নাকি আমেরিকা গিয়ে তার চেয়ে বয়সে ১২ বছরের ছোট এক ছেলেকে বিয়ে করেছে। এখন আমার কথা হলো। সে যদি ১০ বছর নিচে নামতে পারে তাহলে ৩০ বছরের উপরে উঠতে সমস্যা কী। এ ধরনের সুযোগ সে যদি এখানেই পেয়ে যেতো, তাহলে তো তাকে সুদূর আমেরিকা যেতে হত না।

Categories: টপ নিউজ

Tags: