ঢাকা ০৫:৩৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ ::
যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের হাইকমিশনার সাইদা মুনা তাসনিম আইএমও এর প্রথম ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা’র আদর্শ বাস্তবায়ন তরুনদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে নড়াইল-১আসনে আবারো আ’লীগের মনোনয়ন পেলেন বিএম কবিরুল হক মুক্তি খানবাহাদুর আহ্ছানউল্লা ছিলেন বহুমাত্রিকগুনের অধিকারী : অধ্যাপক ড. এম শমসের আলী ফের নৌকার টিকিট পেলেন রাজী মোহাম্মদ ফখরুল পি‌রোজপু‌রে ফেজবু‌কে স্টাটার্স দি‌য়ে অনার্স পড়ুয়া ছা‌ত্রের আত্মহত্যা যেভাবে জানা যাবে এইচএসসির ফল > How to know HSC result নেত্রকোণা -২ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী ওমর ফারুক জনপ্রিয়তার শীর্ষে চাটখিলে যুবলীগের ৫১ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত দিনব্যাপী গণসংযোগ করলেন নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী শাহ্ কুতুবউদ্দিন তালুকদার রুয়েল

ক্যাচ মিসে ম্যাচ মিস টাইগারদের

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৭:৪৯:৪৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১ ২১৬ বার পড়া হয়েছে

ক্যাচ মিসে ম্যাচ মিস টাইগারদের

দেশের সময়২৪ অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

শ্রীলংকা’র বিপক্ষে চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়েও বাজে ফিল্ডিংয়ের কারণে হেরে গেলো বাংলাদেশ। ক্যাচ মিসের মাশুল দিল টাইগার’রা। ১৭১ রান করেও ৫ উইকেটে হারে টাইগার’রা।

ওপেনার লিটন দাসের কল্যাণে দুইবার ১৪ ও ২৩ রানে ক্যাচ তুলে দিয়ে লাইফ পাওয়া ভানুকা রাজাপক্ষ শেষ পর্যন্ত খেলেন ৩১ বলে ৫৩ রানের ঝড়ো ইনিং’স।

১৪ রানে আফিফের বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে প্রথমবার। আর ২৩ রানে মোস্তাফিজে’র বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে দ্বিতীয় দফায় লিটনের কল্যাণে লাইফ পান রাজাপক্ষ।

গুরুত্বপূর্ণ সময়ে ক্যাচ মিস করায় ম্যাচে আর ফেরা হয়নি বাংলাদেশে’র। টাইগারদের এই দুর্বলতাকে পুঁজি করে দাপটের সঙ্গেই ম্যাচ জয় নিশ্চিত করে শ্রীলং’কা।

রোববার আরব আমিরাতে’র শারজা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস হেরে প্রথমে ব্যাট করে মোহাম্মদ নাঈম ও মুশফিকুর রহিমের জোড়া ফিফটিতে ভর করে ৪ উইকেটে ১৭১ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে বাংলাদেশ।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে ৭ বল হাতে রেখেই ৫ উইকেটের জয় নিশ্চিত করে শ্রীলং’কা। দলের জয়ে ৪৯ বলে ৫টি চার ও ৫টি ছক্কায় সর্বোচ্চ ৮০ রান করে অপরাজিত থাকেন চারিথ আ’সালঙ্কা। দুইবার লাইফ পেয়ে ৩১ বলে ৫৩ রান করে ফেরেন ভানুকা রাজা’পক্ষ।

এদিন টস জিতে বাংলাদেশ দলকে প্রথমে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্র’ণ জানায় শ্রীলংকা ক্রিকেট দল।

প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে উদ্বোধনী’তে মোহাম্মদ নাঈম শেখের সঙ্গে ৪০ রানের জুটি গড়ে সাজঘরে ফিরেন লিটন দাস। ৫.৫ ওভারে ১৬ বলে দুটি চারের সা’হায্যে ১৬ রান করে ফেরেন এ ওপেনার।

তিন নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নেমে মাত্র ৭ বলে দুটি চারের সা’হায্যে ১০ রান করে দলীয় ৫৬ রানে ফেরেন সাকিব। করুনারত্নের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন এ অলরা’উন্ডার।

এরপর নাঈমের সঙ্গে দলের হাল ধরেন মুশফি’কুর রহিম। তৃতীয় উইকেটে তাড়া গড়েন ৭৩ রানের জুটি। ৫২ বলে ৬২ রান করে বাউন্ডারি হাঁকাতে গিয়ে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ওপেনার মোহা’ম্মদ নাঈম শেখ। তার বিদায়ে ১৬.১ ওভারে ১২৯ রানে তৃতীয় উইকেট হারায় বাংলা’দেশ।

ইনিংসের শুরু থেকে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে যাওয়া মুশ’ফিকু রহিম ৩২ বলে চারটি বাউন্ডারি আর দুটি ছক্কায় ফিফটি পূর্ণ করেন। মুশফিকের ফিফটির পর রান আউট হয়ে ফেরেন আ’ফিফ হোসেন। ১৮.৩ ওভারে ১৫০ রানে ফে’রেন তিনি।

এরপর মাহমুদউল্লা’হ রিয়াদকে সঙ্গে নিয়ে দলকে এগিয়ে নেন মুশফিকুর রহিম। ৩৭ বলে ৫টি চার ও ২টি ছক্কায় ৫৭ রানের লড়াকু ইনিংস খেলেন মুশ’ফিক। তার ঝড়ো ব্যাটিংয়ে ৪ উই’কেটে ১৭১ রান তুলতে সক্ষম হয় বাংলাদেশ দল।

১৭২ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে প্রথম ওভারেই উই’কেট হারাল শ্রীলংকা। ইনিংসের চতুর্থ বলে নাসুম আহমেদের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন লংকান তারকা ওপেনার কুশাল পেরেরা। দলীয় ২ রানে ফেরেন তিনি।

এরপর চারিথ আসা’লঙ্কাকে সঙ্গে নিয়ে ৬৯ রানের জুটি গড়েন পাথুম নিসাঙ্কা। ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা নিসাঙ্কা ও আসালঙ্কার মধ্যকার জুটির বিচ্ছেদ ঘটান সাকিব আল হাসান। এই অফস্পিনারে’র বলে বোল্ড হওয়ার আগে ২১ বলে ২৪ রান করেন পাথুম নিসাঙ্কা।

চার নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নেমে তৃতীয় বলেই বোল্ড হয়ে ফেরেন আভিস্কা ফা’র্নান্দো। তাকে রানের খাতা খুলতে দেননি সাকিব।

সাকিবের পর লংকান শিবিরে আঘাত হানেন মোহাম্মদ সাইফ’উদ্দিন। তার বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ওয়ানেন্দু হাসারঙ্গা ডি সিলভা। তার বিদায়ের মধ্য দিয়ে ৯.৪ ওভারে ৭৯ রানে ৪ উইকেট হারায় শ্রীলং’কা।

এরপর আফিফ হোসেন ও মোস্তা’ফিজুর রহমান দুইবার ভানুকা রাজাপক্ষকে আউট করার সুযোগ তৈরি করেন। কিন্তু লিটন দাস দুইবার ক্যাচ ফেলে দেওয়ায় চারিথ আ’সালঙ্কা-রাজাপক্ষ দলকে জয়ের দুয়ারে নিয়ে যান।

শেষ দিকে শ্রীলংকা’র জয়ের জন্য ১০ বলে প্রয়োজন ছিল মাত্র ৭ রান। খেলার এমন সময় নাসুম আহমেদের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন ভানুকা রাজা’পক্ষ। তার আগে মাত্র ৩১ বলে তিন চার ও তিন ছক্কায় খেলেন ৫৩ রানের ঝড়ো ইনিংস। তার এমন নান্দনিক ইনিংসে ভর করেই জয় পায় শ্রী’লংকা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

বাংলাদেশ: ২০ ওভারে ১৭১/৪ রান ( মোহাম্মদ নাঈম ৬২, মুশফিকুর রহিম ৫৭*, লিটন দাস ১৬, সাকিব আল হাসান ১০, মাহমুদ’উল্লাহ রিয়াদ ১০*, আফিফ হোসেন ৭)।

শ্রীলংকা: ১৮.৫ ওভারে ১৭২/৫ (চারিথ আসালঙ্কা ৮০*, ভানুকা রাজাপক্ষ ৫৩, পাথুম নিশাঙ্কা ২৪; সাকিব ২/১৭, নাসুম ২/২৯)।

ফল: শ্রীলংকা ৫ উইকেটে জয়ী।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ক্যাচ মিসে ম্যাচ মিস টাইগারদের

আপডেট সময় : ০৭:৪৯:৪৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১

শ্রীলংকা’র বিপক্ষে চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়েও বাজে ফিল্ডিংয়ের কারণে হেরে গেলো বাংলাদেশ। ক্যাচ মিসের মাশুল দিল টাইগার’রা। ১৭১ রান করেও ৫ উইকেটে হারে টাইগার’রা।

ওপেনার লিটন দাসের কল্যাণে দুইবার ১৪ ও ২৩ রানে ক্যাচ তুলে দিয়ে লাইফ পাওয়া ভানুকা রাজাপক্ষ শেষ পর্যন্ত খেলেন ৩১ বলে ৫৩ রানের ঝড়ো ইনিং’স।

১৪ রানে আফিফের বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে প্রথমবার। আর ২৩ রানে মোস্তাফিজে’র বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে দ্বিতীয় দফায় লিটনের কল্যাণে লাইফ পান রাজাপক্ষ।

গুরুত্বপূর্ণ সময়ে ক্যাচ মিস করায় ম্যাচে আর ফেরা হয়নি বাংলাদেশে’র। টাইগারদের এই দুর্বলতাকে পুঁজি করে দাপটের সঙ্গেই ম্যাচ জয় নিশ্চিত করে শ্রীলং’কা।

রোববার আরব আমিরাতে’র শারজা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস হেরে প্রথমে ব্যাট করে মোহাম্মদ নাঈম ও মুশফিকুর রহিমের জোড়া ফিফটিতে ভর করে ৪ উইকেটে ১৭১ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে বাংলাদেশ।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে ৭ বল হাতে রেখেই ৫ উইকেটের জয় নিশ্চিত করে শ্রীলং’কা। দলের জয়ে ৪৯ বলে ৫টি চার ও ৫টি ছক্কায় সর্বোচ্চ ৮০ রান করে অপরাজিত থাকেন চারিথ আ’সালঙ্কা। দুইবার লাইফ পেয়ে ৩১ বলে ৫৩ রান করে ফেরেন ভানুকা রাজা’পক্ষ।

এদিন টস জিতে বাংলাদেশ দলকে প্রথমে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্র’ণ জানায় শ্রীলংকা ক্রিকেট দল।

প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে উদ্বোধনী’তে মোহাম্মদ নাঈম শেখের সঙ্গে ৪০ রানের জুটি গড়ে সাজঘরে ফিরেন লিটন দাস। ৫.৫ ওভারে ১৬ বলে দুটি চারের সা’হায্যে ১৬ রান করে ফেরেন এ ওপেনার।

তিন নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নেমে মাত্র ৭ বলে দুটি চারের সা’হায্যে ১০ রান করে দলীয় ৫৬ রানে ফেরেন সাকিব। করুনারত্নের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন এ অলরা’উন্ডার।

এরপর নাঈমের সঙ্গে দলের হাল ধরেন মুশফি’কুর রহিম। তৃতীয় উইকেটে তাড়া গড়েন ৭৩ রানের জুটি। ৫২ বলে ৬২ রান করে বাউন্ডারি হাঁকাতে গিয়ে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ওপেনার মোহা’ম্মদ নাঈম শেখ। তার বিদায়ে ১৬.১ ওভারে ১২৯ রানে তৃতীয় উইকেট হারায় বাংলা’দেশ।

ইনিংসের শুরু থেকে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে যাওয়া মুশ’ফিকু রহিম ৩২ বলে চারটি বাউন্ডারি আর দুটি ছক্কায় ফিফটি পূর্ণ করেন। মুশফিকের ফিফটির পর রান আউট হয়ে ফেরেন আ’ফিফ হোসেন। ১৮.৩ ওভারে ১৫০ রানে ফে’রেন তিনি।

এরপর মাহমুদউল্লা’হ রিয়াদকে সঙ্গে নিয়ে দলকে এগিয়ে নেন মুশফিকুর রহিম। ৩৭ বলে ৫টি চার ও ২টি ছক্কায় ৫৭ রানের লড়াকু ইনিংস খেলেন মুশ’ফিক। তার ঝড়ো ব্যাটিংয়ে ৪ উই’কেটে ১৭১ রান তুলতে সক্ষম হয় বাংলাদেশ দল।

১৭২ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে প্রথম ওভারেই উই’কেট হারাল শ্রীলংকা। ইনিংসের চতুর্থ বলে নাসুম আহমেদের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন লংকান তারকা ওপেনার কুশাল পেরেরা। দলীয় ২ রানে ফেরেন তিনি।

এরপর চারিথ আসা’লঙ্কাকে সঙ্গে নিয়ে ৬৯ রানের জুটি গড়েন পাথুম নিসাঙ্কা। ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা নিসাঙ্কা ও আসালঙ্কার মধ্যকার জুটির বিচ্ছেদ ঘটান সাকিব আল হাসান। এই অফস্পিনারে’র বলে বোল্ড হওয়ার আগে ২১ বলে ২৪ রান করেন পাথুম নিসাঙ্কা।

চার নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নেমে তৃতীয় বলেই বোল্ড হয়ে ফেরেন আভিস্কা ফা’র্নান্দো। তাকে রানের খাতা খুলতে দেননি সাকিব।

সাকিবের পর লংকান শিবিরে আঘাত হানেন মোহাম্মদ সাইফ’উদ্দিন। তার বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ওয়ানেন্দু হাসারঙ্গা ডি সিলভা। তার বিদায়ের মধ্য দিয়ে ৯.৪ ওভারে ৭৯ রানে ৪ উইকেট হারায় শ্রীলং’কা।

এরপর আফিফ হোসেন ও মোস্তা’ফিজুর রহমান দুইবার ভানুকা রাজাপক্ষকে আউট করার সুযোগ তৈরি করেন। কিন্তু লিটন দাস দুইবার ক্যাচ ফেলে দেওয়ায় চারিথ আ’সালঙ্কা-রাজাপক্ষ দলকে জয়ের দুয়ারে নিয়ে যান।

শেষ দিকে শ্রীলংকা’র জয়ের জন্য ১০ বলে প্রয়োজন ছিল মাত্র ৭ রান। খেলার এমন সময় নাসুম আহমেদের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন ভানুকা রাজা’পক্ষ। তার আগে মাত্র ৩১ বলে তিন চার ও তিন ছক্কায় খেলেন ৫৩ রানের ঝড়ো ইনিংস। তার এমন নান্দনিক ইনিংসে ভর করেই জয় পায় শ্রী’লংকা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

বাংলাদেশ: ২০ ওভারে ১৭১/৪ রান ( মোহাম্মদ নাঈম ৬২, মুশফিকুর রহিম ৫৭*, লিটন দাস ১৬, সাকিব আল হাসান ১০, মাহমুদ’উল্লাহ রিয়াদ ১০*, আফিফ হোসেন ৭)।

শ্রীলংকা: ১৮.৫ ওভারে ১৭২/৫ (চারিথ আসালঙ্কা ৮০*, ভানুকা রাজাপক্ষ ৫৩, পাথুম নিশাঙ্কা ২৪; সাকিব ২/১৭, নাসুম ২/২৯)।

ফল: শ্রীলংকা ৫ উইকেটে জয়ী।